ভালোবাসা দিবসে কেমন উপহার দিবেন প্রিয়জনকে

দেখতে দেখতে চলে আসছে ভ্যালেন্টাইনস ডে বা ভালোবাসা দিবস। আর এই দিনকে কেন্দ্র করে আপনার প্রিয়জনকে কি ধরনের উপহার দিবেন তা বুঝে উঠতে পারছেন না। অনেক সময় ছোট ছোট উপহার বড় উপহারকে হার মানায়। বড় ও দামি উপহারের থেকে ছোট ছোট উপহার অনেক সময় ঠোঁটের কোনে এনে দেয় আনন্দের হাশি। তবে উপহার দেওয়ার ক্ষেত্রে তার প্রয়োজনীয়তা মাথায় রাখা উচিৎ। এমন কিছু উপহার না দেওয়াই ভালো যেটা কোনো কাজে লাগবে না। তাই এমন কিছু উপহার দিন যেটা কাজে লাগে।

আপনার প্রিয়জনকে এমন কিছু উপহার দিন যেটা তার ভালো লাগে। তাহলে জেনে নিন ভ্যালেন্টাইনস ডে বা ভালোবাসা দিবসে প্রিয়জনকে কি ধরনের উপহার দেওয়া যেতে পারে।

ছেলেদের জন্য:
আপনার প্রিয় জনের পছন্দের কথা মাথায় রেখে এই ভালোবাসা দিবসে তাকে দিতে পারেন পারফিউম। আর আগে থেকেই যদি জানা থাকে কোন ব্রান্ডের পারফিউম তার পছন্দ তাবে আপনি চিন্তা থেকে অনেকটাই মুক্তি পাবেন। তবে আপনার প্রিয় মানুষটি কোন ধরনের পারফিউম ব্যবহার করে এটি যদি আপনার জানা না থাকে, তাহলে এই ব্যাপারে একটু ভেবে নিন। শেভিং কিট একটি ভালো উপহার হতে পারে আপনার প্রিয়জনের জন্য। তবে এটি একটু ব্যক্তিগত। তারপরেও প্রয়োজনীয় জিনিস হিসেবে ভালোবাসা দিবসে আপনার প্রিয়জনকে দিতে পারেন এই শেভিং কিট।

যদি এই ভালোবাসা দিবসে আপনার প্রিয়জনকে একেবারেই আলাদা কিছু দিতে চান, সেক্ষেত্রে ক্রিকেট বা ফুটবল ম্যাচের টিকিট দিতে পারেন। আর আপনার দেওয়া এই উপহারটি হবে একদমই আলাদা। যদি জানা থাকে আপনার প্রিয় মানুষটি কোন খেলা বেশি পছন্দ করে, তাহলে তাকে সেই খেলার টুর্নামেন্টের টিকিট দিয়ে চমকে দিতে পারেন।

এছাড়া এই ভালোবাসা দিবসে আপনার প্রিয় বন্ধু বা ভাইকে উপহার হিসেবে দিতে পারেন ঘড়ি, অ্যাশট্রে, টি-শার্ট, কার্ড, টাই, মগ, ওয়ালেট, ফটোফ্রেম, শো-পিস ইত্যাদি।

মেয়েদের জন্য:
ভ্যালেন্টাইনস ডে বা ভালোবাসা দিবসের সব থেকে ভালো উপহার হতে পারে এক গুচ্ছ লাল গোলাপ। আর ব্যতিক্রম কোনো ফুল দিতে চাইলে দিতে পারেন ডালিয়া, অর্কিড, দোলনচাঁপা। আর যদি জানা থাকে তার প্রিয় ফুল কোনটা তাহলেতো আর কথাই নেই।

টেডি-বিয়ারও হতে পারে ভালো উপহার। আপনি চাইলে বিভিন্ন রকমের চকোলেটের মধ্য থেকে তার প্রিয় চকোলেটটি আকর্ষণীয় মোড়কে করে তুলে দিতে পারেন তার হাতে। বইও হতে পারে ভালোবাসা দিবসের ভালো উপহার। আপনার প্রিয়জন যদি বই পড়তে পছন্দ করে তাহলে তাকে উপহার হিসেবে দিতে পারেন গল্প, উপন্যাস বা কোনো কবিতার বই।

এছাড়া উপহার হিসেবে দিতে পারেন ড্রেস, মেকাপ কিট, পছন্দের ব্রান্ডের লিপস্টিক, পার্স, হাত ঘড়ি, সানগ্লাস, হেয়ার স্টেইটনার, আংটি, লকেট, কানের দুল বা পায়েল। তবে উপহার যাই হোক, এর উপস্থাপনা করুন আকর্ষণীয় ভাবে।

আপনি যদি চান প্রিয় মানুষটিকে সম্পূর্ণ ভিন্ন কোনো উপহার দিতে। তাহলে এই রেডিমেট উপহারের পরিবর্তে দিতে পারেন আকর্ষণীয় কিছু। যে উপহারটি পেয়ে আপনার প্রিয়জন ভালোবাসার রঙে রঙিন হয়ে উঠবে। তাহলে জেনে নিন ভিন্ন ধরনের কিছু উপহারের কথা।

নিজের হাতের তৈরী উপহার:
ভালোবাসা দিবসে প্রিয়জনকে উপহার দেওয়ার জন্য আপনি নিজের হাতেই তৈরী করতে পারেন কার্ড, ফটোফ্রেম বা অন্য কিছু। আপনার ভালোবাসার ছোঁয়ায় তৈরী উপহারটি পেয়ে আপনার প্রিয়জন অনেক খুশি হবে।

বুক পকেটে চকোলেট:
এই ভালোবাসা দিবসে আপনার প্রিয়জনের জন্য আপনার বুক পকেটে করে নিয়ে যান কিছু চকোলেট। এতে করে আপনার ভালোবাসা হয়ে উঠবে আরো বেশি মিষ্টি।

রঙিন খামে চিঠি:
চিঠির প্রচলন অনেক আগেই চলে গেছে। কিন্তু ভালোবাসা দিবসে প্রিয়জনকে অভিনব কিছু দিতে চাইলে আপনি নিজেই আপন হাতে লিখতে পারেন আপনার প্রেমের সাতকাহন। আর রঙিন খামে পুড়ে আপনার প্রিয়জনকে দিতে পারেন এই চিরকুট।

লাল গোলাপ:
ভালোবাসা প্রকাশের জন্য গোলাপ ফুল এখনও সেরা। যুগ যুগ ধরেই ভালোবাসা প্রকাশ করার অন্যতম একটি মাধ্যম হলো লাল গোলাপ। লাল গোলাপ ছাড়া যেনো সব উপহারই মলিন রয়ে যায়। ভালোবাসা দিবসে প্রিয় মানুষটিকে একটি লাল গোলাপ দিয়ে দিনটিকে একটু রঙিন করলে মন্দ কী!

বইমেলায় গিয়ে:
চলছে প্রাণের বইমেলা। ভালোবাসা দিবসে প্রিয়জনের হাত ধরে ছুট দিতে পারেন বইমেলা। কিনে দিতে পারেন প্রেমের কবিতার বই! বইয়ের প্রথম পাতায় ভালোবাসা জানিয়ে লিখে দিতে পারেন নিজের স্বচরিত দুয়েকটা লাইন।

তাহলে উপহার নির্বাচনে আর দ্বিধা নয় ভালবাসার মানুষটির জন্য। আপনার পছন্দে কেনা উপহার ভালবাসার মানুষটির জন্য হোক আনন্দের।

We will be happy to hear your thoughts

Leave a reply

Call Now Button
0
Register New Account
Reset Password